বয়স আর শরীরের কারণেই অবসরে ইয়ান বেল

42
ছবি সংগৃহীত

ইংল্যান্ডের সাবেক মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যান ইয়ান বেল ৩৮ বছর বয়সে ক্রিকেট ক্যারিয়ারকে বিদায় বলে দিয়েছেন।

ইংল্যান্ডের বিশ্বকাপ/ ২০১৫ বিপর্যয়ের পর ইয়ান বেলের ওয়ানডেতে আর খেলা হয়নি তবে ২০১৯ মৌসুমে চোটের কারণে সাইডলাইনে চলে গেলেও এতদিন কাউন্টিতে ওয়ারউইকশায়ারের হয়ে নিয়মিত খেলেন তিনি। এই বছরেও ফর্ম পেতে যুদ্ধ করতে হয়েছে তাকে, যেখানে তার সর্বোচ্চ স্কোর ছিল ২৮।

সম্প্রতি এক বিবৃতিতে তিনি জানান, তার শরীর ও বয়সটাই বড় বাধা হিসাবে উল্লেখ করেন। ‘খেলাটার জন্য আমার ক্ষুধা ও আগ্রহ ভীষণ মাত্রায় থাকলেও এই চাহিদার সঙ্গে আমার শরীরটা পাল্লা দিয়ে পেরে উঠছে না।’

অবশ্য তার অবসরের ঘোষণাটা একটু ধোঁয়াশায় মনে হচ্ছে গণমাধ্যোমে। কারণ কাউন্টি ক্লাবের হয়ে তিনি এতিমদ্ধ ২০২১ পর্যন্ত চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। তবে বেল স্পষ্ট জানিয়ে দিয়েছেন , যেই ক্লাবকে তিনি এতো ভালোবাসেন সেই ক্লাবের মানসম্মত খেলা উপহার দিতে না পারে ক্লাবটির অসম্মান চান না। ক্লাবটিকে এতো ভালোবাসার কারণ হলো এই ক্লাবে তিনি কাটিয়েছেন তার ক্রিকেট ক্যারিয়ারের ২২ টি বছর।

টেস্ট দিয়ে ২০০৪ সালে ইংল্যান্ডের হয়ে বেলের আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়েছিল। প্রতিপক্ষ ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। ১১৮ টেস্টে তার রান ৭ হাজার ৭২৭। যেখানে ৪৬ ফিফটির সঙ্গে রয়েছে ২২টি সেঞ্চুরি। ৫ বারের অ্যাশেজ জয়ী এই তারকার চেয়ে টেস্টে ইংল্যান্ডের বেশি সেঞ্চুরি আছে অ্যালিস্টার কুক ও কেভিন পিটারসেনের। এছাড়া বেল ওয়ানডে খেলেছেন ১৬১টি ও টি-টোয়েন্টি ৮টি।